একটি অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শ্যামা পূজার মধ্যে গঙ্গারামপুরে কালদিঘি পদাতিক ক্লাব বালুরঘাট ও গঙ্গারামপুরের দুটি শ্মশানের জন্য দুটি ট্রলি বিলি করলেন

0
302

একটি অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শ্যামা পূজার মধ্যে গঙ্গারামপুরে কালদিঘি পদাতিক ক্লাব বালুরঘাট ও গঙ্গারামপুরের দুটি শ্মশানের জন্য দুটি ট্রলি বিলি করলেন।১৫ই আগস্ট এই ক্লাবটি ট্রাই সাইকেল ও ট্রলি হাসপাতালে বিলি করার উদ্যোগ নিয়েছিল, ক্লাবের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সকলেই।


শীতল চক্রবর্তী, গঙ্গারামপুর ২৮শে অক্টোবর দক্ষিণ দিনাজপুর।
শ্যামা পূজার মধ্যে সমাজসেবামূলক কাজে এগিয়ে এল একটি ক্লাব।বালুরঘাট ও গঙ্গারামপুরের জেলার দুটি শ্মশানের জন্য তাদের তরফে দেওয়া হল একটি করে ট্রলি। দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুরের কালদিঘি পদাতিক ক্লাবের তরফে এমন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় তাদের ক্লাবের পূজা প্যান্ডেলের সামনে। ক্লাব সম্পাদক জানিয়েছেন,১৫ই আগস্টেও হাসপাতালে ট্রলি ও ট্রাই সাইকেল বিতরণ করেছিলাম।পুজোর মধ্যেও এমন কাজ করা হলো ,যা আগামী দিনেও এমন কাজ করার চেষ্টা করে যাবো। ক্লাবের এমন উদ্যোগে সাধুবাদ জানিয়েছেন সকলেই।
দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার মধ্যে গঙ্গারামপুরের কালদিঘি পদাতিক ক্লাবটি সারা বছর ধরেই সমাজসেবামূলক কাজে এগিয়ে আসে তারা। শুধুমাত্র বিরাট আকারে শ্যামা পুজো করেই পুজো দর্শণার্থীদের আনন্দ দেন না তারা, সারা বছর ধরেও বিভিন্ন ধরনের সমাজ সেবামূলক কাজ করে যান ক্লাবের সম্পাদক আনন্দ দাস, সহ-সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, সভাপতি শামসুদ্দিন মিয়ার উদ্যোগে ক্লাবের সকল সদস্যদের নিয়ে। বিগত বন্যার সময় তারা দুঃস্থ বাড়িঘর ভেঙ্গে যাওয়া মানুষজনদের বহু টিন বিলি করে ঘর তৈরি করে দিয়েছিলেন।কোভিদ ১৯ পরিস্থিতির সময়েও তারা দুঃস্থ মানুষজনদের বিভিন্ন ধরনের ত্রাণ সামগ্রী বিলি করে সকলের নজর কেড়েছিলেন।এই ক্লাবটি গঙ্গারামপুর মহকুমা হাসপাতাল লাগোয়া হওয়ায় সারা বছর ধরেই তারা চিকিৎসা সংক্রান্ত যেকোনো সমস্যায় পড়লে রোগী ও তার আত্মীয়-স্বজনদের সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে থাকেন।
এবছরও তারা জেলা তথা উত্তরবঙ্গের মধ্যে সেলফি জনের প্যান্ডেল ও যুদ্ধ নয় শান্তি চাই প্রতিমা, কচিকাঁচাদের বিনোদন দেবার জন্য আলোর সজ্জা তৈরি করে জেলার সেরা শ্যামা পূজার সম্মান পেয়েছেন। যা উত্তরবঙ্গবাসীর নজর কেড়েছে তাদের পুজো প্যান্ডেল থেকে শুরু করে প্রতিমা ও আলোকসজ্জা।
কালদিঘি পদাতিক ক্লাব সূত্রের খবর, বালুঘাট ও গঙ্গারামপুরে দুটি বিরাট আকারে শ্মশান রয়েছে। এদিন কালীপুজোর মধ্যেই কালদিঘী পুজা প্যান্ডেলের সামনে একটি অনুষ্ঠান করে দুটি শ্মশানের জন্য ট্রলি বিলি করলেন।সেখানে ক্লাবের সম্পাদক আনন্দ দাস ,সভাপতি সামসুদ্দিন মিয়া, ক্লাবের সহ-সম্পাদক আনোয়ার হোসেন,থেকে শুরু করে ক্লাবের বাকি সদস্যদের নিয়ে এই অনুষ্ঠানটি করা হয়।
ক্লাব সম্পাদক আনন্দ দাস জানিয়েছেন,সারা বছর ধরেই আমরা সমাজ সেগুলো কাজ করে যাই।শ্যামা পূজার মধ্যে দুটি শ্মশানকে ট্রলি দেওয়া হলো। পুজোর মধ্যেও কাপড় বিলি করা হবে। সারা বছর ধরে সমাজ সেবামূলক কাজও আমাদের ক্লাব করে থাকে মানুষের পাশে থেকে।
জেলার মধ্যে এই ক্লাবটিতেই সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষজনদের নিয়ে ক্লাবের সকলেই শ্যামাপূজার অনুষ্ঠান সহ একাধিক কর্মসূচি পালন করে থাকেন।
কালদিঘি পদাতিক ক্লাবের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সকলেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here